গর্ভবতী মহিলাদের প্রায়ই বিভিন্ন ভাবে ভাল পরিমানে ক্যালসিয়াম খাওয়ার পরামর্শ দেওয়া হয় শিশুর হাড়, দাঁত ও মাংসপেশীর বৃদ্ধির জন্য| তবে যদি এই সময় আপনি দুধ কিছু কারণে নিতে পারন তাহলে দই আপনার জন্য দ্বিতীয় ভাল বিকল্প|

কিন্তু প্রশ্ন জাগে যে গর্ভাবস্থায় দই খাওয়া কি নিরাপদ? গর্ভাবস্থায় দইয়ের অনেক স্বাস্থ্য বেনিফিট আছে যা আমরা আজ আপনাদের সাথে শেয়ার করব|দই ক্যালসিয়াম সমৃদ্ধ এবং হজম করা সহজ|এটা গর্ভাবস্থায় যথেষ্ট ক্যালসিয়াম এবং প্রোটিন প্রদান করে আপনার শিশুর সঠিক বৃদ্ধি জন্য|

Embryo, Human, Infant, Pregnancy

গর্ভাবস্থায় শরীর যদি যথেষ্ট ক্যালসিয়াম না পায়, তাহলে এটা শিশুর প্রয়োজনীয়তা পূরণ করার জন্য আপনার হাড় থেকে ক্যালসিয়াম গ্রহণ করা শুরু করবে| তাছাড়া, দইয়ে যথেষ্ট ভাল ব্যাকটেরিয়া (প্রোবায়োটিক্স) আছে যা ক্ষতিকারক ব্যাকটেরিয়ার সঙ্গে যুদ্ধ করতে সাহায্য করে|গর্ভাবস্থার খাদ্যাভ্যাসে দই আপনার অনাক্রম্যতা জোরদার করতে সাহায্য করে|

নিচের সুবিধাগুলোর জন্য আপনার গর্ভাবস্থায় দই খাওয়া আবশ্যক|গর্ভাবস্থায় দইয়ের স্বাস্থ্য উপকারিতায় নজর রাখুন:

উন্নত হজম ক্ষমতা দই সামগ্রিক হজম উন্নত করে| এছাড়া খাবারে বর্তমান পুষ্টি, সহজে শোষণ করতে সাহায্য করে| অতএব গর্ভাবস্থায় অপুষ্টির হাত থেকে শরীরকে রক্ষা করে| গর্ভাবস্থায় দই খাওয়ার এটি অন্যতম বেনিফিট| শরীর শীতল করে মসলাযুক্ত খাবার দইয়ের সাথে খেতে পারেন শরীর ঠান্ডা রাখার জন্য|গর্ভাবস্থায় মসলাযুক্ত খাবার খাওয়ার ইচ্ছে জাগে যা অম্লতা এবং শরীরে অস্বস্তি বাড়ায়| সুতরাং, দই ও মসলাযুক্ত খাবার একত্রে খাওয়ার উপায়টি ভাল|

ক্যালসিয়ামের সবচেয়ে ভাল উৎস দইয়ে উপস্থিত ক্যালসিয়াম, ভ্রুনের হাড়, পেশী এবং দাঁত বৃদ্ধির জন্য প্রয়োজনীয়| এছাড়া গর্ভাবস্থায় আপনার হাড়ের থেকে ক্যালসিয়াম হারানো প্রতিরোধ করে| দইয়ের এটি শ্রেষ্ঠ স্বাস্থ্য বেনিফিট|

উচ্চ রক্তচাপ প্রতিরোধ করে গর্ভাবস্থায় দইয়ের স্বাস্থ্য উপকারিতা প্রচুর এবং তাদের মধ্যে একটি হল রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণ| গর্ভাবস্থায় উচ্চ রক্তচাপের ঝুঁকি থেকে যায়, এবং দই এর প্রতিরোধ করে| এছাড়াও দই আপনার হৃদপিণ্ডের জন্য বেশ ভাল এবং কলেস্টেরলের মাত্রা কমায়|

অনাক্রম্যতা জোরদার করে দইয়ে উপস্থিত ভাল ব্যাকটেরিয়া, ক্ষতিকর ব্যাকটেরিয়ার সাথে যুদ্ধ করতে সাহায্য করে যা আমাদের শরীরে সংক্রমণ ঘটায়| দই অনাক্রম্যতা জোরদার করতে সাহায্য করে কারণ এটা প্রোবায়োটিক্স জনসংখ্যা বৃদ্ধি করে যা পাচক ট্র্যাক থেকে পুষ্টি শোষণ করতে সাহায্য করে|

মানসিক চাপ এবং উদ্বেগ প্রতিরোধ করে চাপ ও উদ্বেগ গর্ভাবস্থায় সাধারণ ব্যাধি|দই গর্ভাবস্থায় চাপ উপশম করে কারণ এটা মস্তিষ্কের আবেগ কেন্দ্রটি শান্ত করে, যেহেতু গর্ভাবস্থায় এটি অতিসক্রিয় হয়ে ওঠে|

ত্বকের স্বাভাবিক রং বজায় রাখে ও শুষ্ক ত্বক প্রতিরোধ করে গর্ভাবস্থায় কিছু সাধারণ সমস্যা যেমন ত্বকের স্বাভাবিক রঙের বদল এবং শুষ্ক ত্বক হরমোনের ভারসাম্যহীনতার কারণে হয়ে থাকে|গর্ভাবস্থায় দই আপনার ত্বক সুস্থ রাখে এবং ত্বকের স্বাভাবিক রং বজায় রাখতে সাহায্য করে|দই ভিটামিন ই সমৃদ্ধ, যা আপনার ত্বকের জন্য খুবই উপকারী|

ওজন নিয়ন্ত্রণ গর্ভাবস্থা ওজন বৃদ্ধি একটি সুস্থ নিদর্শন|যাইহোক, অত্যধিক ওজন বৃদ্ধি ভাল বলে বিবেচনা করা হয় না| দই, আপনার শরীরের একটি হরমোন করটিসলের বৃদ্ধির মাত্রা নিয়ন্ত্রণ করে যা হরমোনের ভারসাম্যহীনতা এবং ওজন বাড়তে পারে| গর্ভাবস্থায় অত্যধিক ওজন বৃদ্ধি রোধ করার জন্য ডাক্তাররা দই খাওয়ার পরামর্শ দিয়ে থাকেন|

পেশীর উন্নয়ন দই প্রোটিন সমৃদ্ধ এবং আপনার শিশুর পেশীর উন্নয়নে সাহায্য করে|গর্ভাবস্থায় দই আপনার শিশুকে সুস্থ ও হৃষ্টপুষ্ট করে| এইগুলি হল গর্ভাবস্থায় দইয়ের সেরা উপকারিতা|

Sharing is caring!

Related Posts

Comments (0)

Leave a Reply